শুক্রবার, ১লা অক্টোবর, ২০২০ ইং

‘যাদের রাজনীতির উৎস বন্দুকের নল, তাদের জনস্বার্থের কথা মানায় না’

নিউজগার্ডেনবিডিডটকম: 

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘যাদের রাজনীতির উৎস বন্দুকের নল, জনগণ নয়, তাদের মুখে জনস্বার্থের কথা মানায় না। স্বাধীনতার চেতনাকে ভূলণ্ঠিত করে এবং হত্যা ও সন্ত্রাস নির্ভর রাজনীতি করে তাদের মুখে গণতন্ত্রের দাবি শোভা পায় না।’

বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর) সকালে রাজধানীর সেতু ভবনে সেতু মন্ত্রণালয়ের অধীনে নির্মাণাধীন বিভিন্ন প্রকল্পের কাজের অগ্রগতি পর্যালোচনা বিষয়ে সেতু সচিব মো. বেলায়েত হোসেনের সঙ্গে মতবিনিময় কালে একথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের তার সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে মতবিনিময় সভায় যুক্ত হন।

‘জনস্বার্থ নাকি সরকারের লক্ষ্য নয়’, বিএনপি মহাসচিবের এমন অভিযোগ প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে জনগণের স্বার্থকে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দিয়ে আসছে বলেই মানুষের আস্থা অর্জন করেছে।’

তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ এদেশের সবচেয়ে প্রাচীন এবং বৃহত্তর রাজনৈতিক দল, মাটি ও মানুষের দল হিসেবে সংগঠনটি জনমানুষের হৃদয়ের গভীরে অবস্থান করছে।’ তিনি বলেন, ‘বিএনপিই জনস্বার্থ সুরক্ষায় অবিশ্বস্ত, বিপরীতে আওয়ামী লীগ জনআস্থার প্রতীক।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে দেশ ও জনগণের স্বার্থ সবার আগে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘যারা দেশ বিকিয়ে দিয়ে, স্বাধীনতার চেতনাকে ভূলণ্ঠিত করে এবং হত্যা ও সন্ত্রাসনির্ভর রাজনীতি করে তাদের মুখে গণতন্ত্রের দাবি শোভা পায় না।’

তিনি আরও বলেন, ‘বিএনপি নেত্রীর ক্যারিশমা দেশকে দুর্নীতিতে পর পর পাঁচ বার বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন করেছিল, তার ক্যারিশমায় ২১ শে আগস্ট ঘটিয়ে জজ মিয়া নাটক তৈরি করেছিল। খালেদা জিয়া ক্ষমতায় থাকাকালীন ভারত সফরে গিয়ে গঙ্গার পানি চুক্তির কথা ভুলে গিয়েছিল।
বিপরীতে শেখ হাসিনা দেশের স্বার্থকে প্রাধান্য দিয়ে সীমান্ত সমস্যা, ছিটমহল বিনিময়, সমুদ্র বিজয় করেছেন।‘ বিএনপি ক্ষমতায় থাকাকালীন দেশবিরোধী বিদেশি শক্তিরই প্রতিভূ ছিল বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

Print Friendly, PDF & Email

মতামত