শনিবার, ৩১শে অক্টোবর, ২০২০ ইং

১২ জুলাইয়ের পর হজের টাকা ফেরতের আবেদন

নিউজগার্ডেনবিডিডটকম: 

চলতি বছর করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে হজ আয়োজন হবে কি, হবে না তা নিয়ে ধোঁয়াশা ছিল। সৌদি আরব সরকার গত সোমবার হজ আয়োজনের ঘোষণা দিয়েছে। তবে এ বছর দেশটির নাগরিক ও সেখানে অবস্থানরত বিদেশিরাই হজের সুযোগ পাচ্ছেন। অন্য কোনো দেশ থেকে এবার হজের জন্য মুত্তাকীদের নেওয়া হবে না বলেও ঘোষণা দেয় সৌদি প্রশাসন।

বাংলাদেশ থেকে এবার সরকারি ও বেসরকারি মিলে প্রায় ৬৫ হাজার হজযাত্রী হজে যাওয়ার জন্য নিবন্ধন কার্যক্রম সম্পন্ন করেন। কিন্তু বর্তমান পরিস্থিতি ও সৌদি আরবের ঘোষণা অনুযায়ী কেউ যেতে পারছেন না। এ কারণে তারা চাইলে নিবন্ধনের পুরো টাকাই ফেরত নিতে পারবেন বলে জানিয়েছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। ১২ জুলাইর পর এ আবেদন করতে হবে।

আজ বুধবার দুপুরে হজ নিয়ে অনলাইন সভায় এই সিদ্ধান্ত দেওয়া হয়। ধর্ম মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ জনসংযোগ কর্মকর্তা মোহাম্মদ আনোয়ার হোসোইন এ সিদ্ধান্তের লিখিত নিয়ম পড়ে শোনান।

আনোয়ার হোসোইন জানান, যারা হজ নিবন্ধনের টাকা তুলে নেবেন, তাদের কোনো সার্ভিস চার্জ কেটে রাখা হবে না। এ ছাড়া টাকা জমা রেখে সামনের বছর নিবন্ধিতভাবেই যাত্রীরা হজে যেতে পারবেন বলেও তিনি জানান।

লিখিত বক্তব্যে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ জনসংযোগ কর্মকর্তা বলেন, করোনাভাইরাস মহামারির কারণে এ বছর নতুন করে বিদেশিদের কেউ হজের জন্য সৌদি আরবে যেতে না পারলেও সেখানে অবস্থানরত বিভিন্ন দেশের নাগরিকদের মধ্য থেকে সীমিত সংখ্যকদের নিয়ে পালিত হবে মুসলিমদের সবচেয়ে ধর্মীয় জমায়েতের এই আনুষ্ঠানিকতা। সৌদি আরবের হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সোমবার এই সিদ্ধান্ত জানিয়েছে বলে বিবিসিসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম খবর দিয়েছে। এবার বাংলাদেশ থেকে ৬৪ হাজার ৫৯৪ জন হজে যেতে আগ্রহী ছিলেন। সৌদি সরকারের এই সিদ্ধান্তের কারণে তাদের হজে যাওয়া হচ্ছে না।

তাই ধর্ম সচিব মো. নুরুল ইসলাম, হাবের সভাপতিসহ হজের সঙ্গে সংশ্লিষ্টদের উপস্থিতিতে একটি সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে কিছু সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সিদ্ধান্তগুলো হলো-
১. চলতি বছরের প্রাক-নিবন্ধন এবং নিবন্ধন যথারীতি ২০২১ (১৪৪২ হিজরি) সালের প্রাক নিবন্ধন এবং নিবন্ধন হিসেবে কার্যকর থাকবে।
২. আগামী বছর ২০২১ সালে কোনো কারণে হজ প্যাকেজের ব্যয় হ্রাস-বৃদ্ধি হলে তা হজযাত্রীর জমাকৃত অর্থের সমন্বয় করা হবে।
৩. কোনো হজযাত্রী নিবন্ধন বাতিল করলে একইসাথে তার প্রাক-নিবন্ধন বাতিল হয়ে যাবে এবং তাকে নতুন করে প্রাক-নিবন্ধন করে হজে যেতে হবে।
৪. কোনো হজযাত্রী টাকা উত্তোলন করতে চাইলে অনলাইনে মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে আবেদন করবেন এবং কোনো সার্ভিস চার্জ কর্তন ছাড়াই তাকে তার সমুদয় অর্থ ফেরত দেওয়া হবে।
৫. বেসরকারি ব্যবস্থাপনার হজযাত্রী নিবন্ধনের টাকা উত্তোলন করতে চাইলে সংশ্লিষ্ট হজ এজেন্সির মাধ্যমে অনলাইনে আবেদন করবেন এবং মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন সাপেক্ষে হজ এজেন্সির মাধ্যমে অথবা ব্যাংকের মাধ্যমে অর্থ গ্রহণ করবেন।
৬. সরকারি অথবা বেসরকারি ব্যবস্থাপনার যেসব হজযাত্রী নিবন্ধনের টাকা তুলতে চান তাদেরকে আগামী ১২ জুলাইয়ের আবেদন করতে হবে।

সভায় সদ্য প্রয়াত ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ মো. আব্দুল্লাহর আত্মার মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ দোয়া করা হয়।

Print Friendly, PDF & Email

মতামত