সোমবার, ৩০শে নভেম্বর, ২০২০ ইং

করোনা মোকাবিলায় চীন পাশে আছে: ওবায়দুল কাদের

নিউজগার্ডেনবিডিডটকম: 

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে চীন বাংলাদেশের পাশে থাকবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

রোববার (১৫ ফেব্রুয়ারি) ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে মুজিববর্ষ উদাযাপনকে কেন্দ্র করে সম্পাদকমণ্ডলীর বৈঠক শেষে তিনি এ সব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘একমাত্র চীনই করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণ করতে পেরেছে। তারা কীভাবে কন্ট্রোল করতে পারছেন সে বিষয় শেয়ার করার জন্য আমাদের কাছে তাদের একটা চিঠি এসেছে। তারা প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করতে প্রস্তুত আছে। এ ধরনের সংক্রমণ এবং বিস্তার রোধ করার জন্য চীন সার্বিক সহযোগিতা সহানুভূতির হাত প্রসারিত করে চিঠি দিয়েছে।’

যে সব দেশ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে, সেই সব দেশ থেকে প্রবাসীদের আসা বন্ধের পরিকল্পনা আছে কি না জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘সরকার থেকে এদের নিরুৎসাহিত করা হচ্ছে। গতকাল থেকে কঠোরভাবে বিষয়টি নিরুৎসাহিত করা হয়েছে এবং যাতে বিদেশ থেকে বিমানের মাধ্যমে আসা বন্ধ করা যায়। সেই ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।’

কাদের বলেন, ‘করোনা মোকাবিলায় আমরা প্রস্তুত। প্রথম থেকে বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিয়েছেন। সরকার যেমন প্রস্তুত, দলকেও প্রস্তুত করা হয়েছে। দেশবাসীকে সতর্ক করে লিফলেট বিতরণ করা হচ্ছে। আমাদের দেশের মধ্যে সংক্রমিত হওয়ার ঘটনা নেই, যারা সংক্রমিত হয়েছে তারা বিদেশ থেকে এসেছেন। আগে যারা আসছে তাদের কোয়ারেনটাইনে রেখে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘স্কুল-কলেজ বন্ধের ব্যাপারে দাবি উঠেছে। বিষয়টি উচ্চপর্যায়ে আলোচনায়ও আছে। বিষয়টি আমাদের ভাবনায় আছে। আমরা গভীরভাবে বিষয়টি পর্যবেক্ষণ করছি। সময়মতো বিষয়টির ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।’

পদ্মা সেতুর কাজ সম্পন্ন কবে হবে এমন প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘পদ্মাসেতুর কাজে চাইনিজ কর্মীদের কিছু কিছু ছুটিতে গেছে কিন্তু তার সংখ্যা খুব বেশি না। এখানে ১ হাজার মতো চাইনিজ কর্মী কাজ করেন প্রকৌশলী এবং টেকনেশিয়ানসহ তার মধ্যে ছুটিতে গেছে ২৫০ জনের মতো, এদের মধ্যে কিছু চলে এসেছে। বাকিরা এ সময়ের মধ্যে না এলে যদি তাদের আসা বিলম্বিত হয় তাহলে কিছুটা দেরি হতে পারে। আমাদের ৪১টি স্প্যানের মধ্যে ২৬টি স্প্যান বসে গেছে। আগামী দুই মাস পর্যন্ত যদি অব্যাহত থাকে তাতে কোনো অসুবিধার সম্মুখীন হতে হবে না।’

এ সময় উপস্থতি ছিলেন সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ, ডা. দীপু মনি, ড. হাছান মাহমুদ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, বি এম মোজাম্মেল হোসেন, মির্জা আজম, এস এম কামাল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, সাংস্কৃতিক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস, উপ দপ্তর সম্পাদক আবু সায়েম খান, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলামসহ আওয়ামী লীগের নেতারা।

Print Friendly, PDF & Email

মতামত