শুক্রবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং

সংসদে শিল্পমন্ত্রী বিদেশি বিনিয়োগে ১৬ বাধা

নিউজগার্ডেনবিডিডটকম: 

দেশে বিদেশি বিনিয়োগ বৃদ্ধির ক্ষেত্রে কারখানা স্থাপনের জন্য পর্যাপ্ত জমির অভাব, বিদ্যুৎ ও গ্যাস পাওয়ার সমস্যা, অনুন্নত অবকাঠামোসহ ১৬টি বাধার কথা উল্লেখ করেছেন শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন।

আজ সোমবার জাতীয় সংসদে সরকারি দলের সাংসদ মোজাফ্ফর হোসেনের প্রশ্নের জবাবে শিল্পমন্ত্রী এসব বাধার কথা জানান। স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে বৈঠকের শুরুতে প্রশ্নোত্তর টেবিলে উপস্থাপিত হয়।

শিল্পমন্ত্রীর আরও যেসব বাধার কথা উল্লেখ করেছেন, সেগুলো হলো—চাহিদা ও সময়মতো ঋণ না পাওয়া, কাঁচামালের সমস্যা, দক্ষ জনশক্তির অভাব, পণ্য বিপণনে সমস্যা, যথেষ্ট জ্ঞান ও অভিজ্ঞতা সম্পন্ন আগ্রহী উদ্যোক্তার অভাব, মুক্ত বাজার অর্থনীতি, বাজারে অসম প্রতিযোগিতা, বিভিন্ন সংস্থা থেকে ছাড়পত্র গ্রহণ, বিভিন্ন ধরনের ট্যাক্সেশন সমস্যা, পলিসিগত সমস্যা, ব্যাংক ঋণের উচ্চ সুদের হার এবং গ্যাসের সমস্যা।

শিল্পমন্ত্রী বলেন, এসব বাধা দূর করতে বর্তমান সরকারের নির্বাচনী ইশতেহার অনুযায়ী শিল্প মন্ত্রণালয় বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছে। সেগুলো হলো ঋণের শর্ত সহজীকরণ, শিল্প ঋণের জন্য বিশেষ তহবিল গঠন, বিদেশি মেলায় অংশ গ্রহণ বাড়ানো, নতুন নতুন শিল্পনগরী ও শিল্প পার্ক স্থাপন, শিল্প কারখানায় বিদ্যুৎ ও গ্যাস সংযোগের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া, শিল্পজাত কাঁচামাল আমদানিতে শুল্কহার কমানো, ছাড়পত্র সহজীকরণ, ব্যাংক সুদের হার কমানো, ট্যাক্সেশন সমস্যা দূরীকরণ ইত্যাদি।

মজুত গ্যাস চলবে ১১ বছর

সরকারি দলের সাংসদ এবাদুল করিমের প্রশ্নের জবাবে বিদ্যুৎ, জ্বালানী প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ জানান, দেশে বর্তমানে (১ জানুয়ারি ২০২০) ১০ দশমিক ৬৩ ট্রিলিয়ন ঘনফুট উত্তোলনযোগ্য গ্যাসের মজুত রয়েছে। বর্তমানে দৈনিক ২ হাজার ৫৭০ মিলিয়ন ঘনফুট হারে গ্যাস উৎপাদন হচ্ছে। এ হারে উৎপাদন অব্যাহত থাকলে মজুত গ্যাস ১১ বছর ব্যবহার করা যাবে।

সরকারি দলের এম আবদুল লতিফের প্রশ্নের জবাবে বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী বলেন, চাহিদার তুলনায় বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা বেশি হওয়ায় কোথাও বিদ্যুৎ ঘাটতি পরিলক্ষিত হচ্ছে না। তবে, সঞ্চালন ও বিতরণ নেটওয়ার্কের সীমাবদ্ধতার কারণে মাঝে মধ্যে বিদ্যুৎ বিভ্রাট ঘটে। বিদ্যুতের বিভ্রাট, লো-ভোল্টেজ, উৎপাদনের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে গ্রাহকসংখ্যা বৃদ্ধি, বিতরণ ও সঞ্চালন প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। পিক-অফপিক আওয়ার বিদ্যুতের লোডের তারতম্য কমানোর বিষয়ে কার্যক্রম চলমান রয়েছে। এসব কার্যক্রম বাস্তবায়ন হলে বিদ্যুৎ বিভ্রাট ও ভোল্টেজ তারতম্যজনিত সমস্যা দূর করা সম্ভব হবে এবং গুণগতমানের নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ করা সম্ভব হবে।

এলজিপির গ্রাহক প্রায় ৩৮ লাখ

বিকল্প ধারার সাংসদ আব্দুল মান্নানের প্রশ্নের জবাবে নসরুল হামিদ বলেন, বর্তমানে এলজিপির গ্রাহক প্রায় ৩৮ লাখ।

বিএনপির সাংসদ গোলাম মোহাম্মদ সিরাজের প্রশ্নের জবাবে নসরুল হামিদ জানান, আমদানি করা এলএনজিসহ বর্তমানে দেশে দৈনিক তিন হাজার ১৬০ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ হচ্ছে।

সংরক্ষিত আসনের সাংসদ গ্লোরিয়া ঝর্ণা সরকারের প্রশ্নের জবাবে নসরুল হামিদ বলেন, বাসাবাড়িতে ব্যবহৃত গ্যাসের সিলিন্ডার নিম্নচাপে (প্রতি বর্গইঞ্চিতে ২৪০ পাউন্ড) তরলীকরণ করা হয় বলে এই সিলিন্ডার বিস্ফোরণের ঝুঁকি খুবই কম। অন্যদিকে গাড়িতে ব্যবহৃত সিলিন্ডার উচ্চ চাপে (প্রতি বর্গ ইঞ্চিতে ৩০০০ পাউন্ড) তরলীকরণ করা হয় বলে এটা বিস্ফোরণের ঝুঁকি বেশি। তবে এলপিজি সিলিন্ডার ব্যবহারে অজ্ঞতা ও অসচেতনতার কারণে বা নিম্নমানের সিলিন্ডার ব্যবহারের কারণে দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।

৩৪টি টেলিভিশন সম্প্রচারে রয়েছে

সরকারি দলের শামসুল হকের প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেন, বর্তমানে দেশে চারটি সরকারি ও বেসরকারি ৩০টি টেলিভিশন চ্যানেল সম্প্রচারে রয়েছে। দেশে বেসরকারি পর্যায়ে প্রিন্ট মিডিয়ার সংখ্যা ৩১৬৪টি। সরকারি প্রিন্ট মিডিয়া একটি, সেটি হলো দৈনিক বার্তা। এটি রাজশাহী থেকে প্রকাশিত হয় যা একটি ট্রাস্টি বোর্ড দ্বারা পরিচালিত হয়।

Print Friendly, PDF & Email

মতামত