বুধবার, ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং

চাকরিতে অষ্টম গ্রেড বা ওপরের পদেও কোটা থাকবে না

নিউজগার্ডেনবিডিডটকম: 

সরকারি চাকরিতে অষ্টম বা তার ওপরের পদেও সরাসরি নিয়োগে কোনো কোটা থাকবে না। বর্তমান পরিপত্র অনুযায়ী, নবম গ্রেড (প্রথম শ্রেণি) এবং ১০ম থেকে ১৩তম গ্রেডের (দ্বিতীয় শ্রেণি) পদে নিয়োগে কোনো কোটা নেই।

সরকারি চাকরিতে কোটার বিষয়ে আগের জারি করা পরিপত্র স্পষ্ট করতে এই প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। আজ সোমবার তেজগাঁওয়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার বৈঠকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের দেওয়া এই প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়।

বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পরে সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে বৈঠকের সিদ্ধান্ত জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।

সংবাদ ব্রিফিংয়ে দেওয়া লিখিত কাগজে বলা হয়, সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি) নবম গ্রেড এবং ১০ম থেকে ১৩তম গ্রেড ছাড়াও অষ্টম গ্রেড বা তার ওপরের গ্রেডের কোনো কোনো পদে সরাসরি নিয়োগ দিয়ে থাকে। কিন্তু আগের পরিপত্রে কেবল নবম গ্রেড (প্রথম শ্রেণি) এবং ১০ম থেকে ১৩তম গ্রেডের (দ্বিতীয় শ্রেণি) পদে নিয়োগের ক্ষেত্রে কোটা বাতিল করা হলেও অষ্টম বা তার ওপরের গ্রেডের পদে সরাসরি নিয়োগের ক্ষেত্রে কোটা বণ্টন পদ্ধতি কী হবে, সে বিষয়ে সুস্পষ্ট নির্দেশনা নেই। এ জন্যই পরিপত্রটি সংশোধনের প্রয়োজন।

এ ছাড়া আজকের বৈঠকে ‘আকাশপথে পরিবহন (মন্ট্রিল কনভেনশন) আইন, ২০২০’-এর খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। প্রস্তাবিত এই আইন অনুযায়ী আকাশপথে দুর্ঘটনায় যদি কোনো যাত্রী মারা যান বা আঘাত পান, তাহলে বর্তমান হিসাবে ১ কোটি ১৭ লাখ টাকার (এক লাখ এসডিআর) বেশি ক্ষতিপূরণ পাবেন। বর্তমান আইনে এই কারণে ক্ষতিপূরণের পরিমাণ ২০ লাখ ৩৭ হাজার ৬০০ টাকা। এ ছাড়া ফ্লাইট দেরি হলে ও মালপত্র নষ্ট বা হারিয়ে গেলেও পাবেন বড় অঙ্কের ক্ষতিপূরণ।

বৈঠকে বাংলাদেশ ট্রাভেল এজেন্সি (নিবন্ধন ও নিয়ন্ত্রণ) সংশোধন আইনের খসড়া এবং আয়োডিনযুক্ত লবণ আইনের খসড়াও অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া ৬ এপ্রিল আন্তর্জাতিক ক্রীড়া দিবসের পাশাপাশি এদিন জাতীয় ক্রীড়া দিবস পালনের প্রস্তাবও অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

Print Friendly, PDF & Email

মতামত