রবিবার, ২৭শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং

অ্যাকশন শুরু, দেশে-বিদেশে কে তা বিষয় নয় : কাদের

নিউজগার্ডেনবিডিডটকম: 

রাজধানীসহ সারাদেশে মহামারি আকার ধারণ করেছে ডেঙ্গু। এ পরিস্থিতিতে সরকার স্বাস্থ্য বিভাগের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের ঈদের ছুটি বাতিল করেছে। তবে এরই মধ্যে সপরিবারে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর মালয়েশিয়া সফর নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে যে খবর রয়েছে, সে প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, কে দেশে কে বিদেশে তা বিষয় নয়, ডেঙ্গু মোকাবিলায় কাজ হচ্ছে কি-না সেটাই বিষয়। কারও ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে মন্তব্য করতে চাই না।

ডেঙ্গু প্রতিরোধ ও সচেতনতা তৈরিতে তিনদিনের কর্মসূচী শুরু করেছে আওয়ামী লীগ। বুধবার (৩১ জুলাই) রাজধানীর ধানমণ্ডি লেকে দেশব্যাপী ‘পরিস্কার রাখি চারপাশের পরিবেশ, পরিছন্ন সমাজ- ডেঙ্গুমুক্ত বাংলাদেশ’ স্লোগানে কর্মসূচির উদ্বোধন করা হয়। সকালে ধানমন্ডি লেক সিটি করপোরেশনের কর্মচারীরা ফগার মেশিন ও পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার জিনিসপত্র নিয়ে অভিযান শুরু করে।

কর্মসূচীর উদ্বোধন করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমরা ভাষণে বিশ্বাস করি না, ডেঙ্গুর বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগের অ্যাকশন শুরু হয়ে গেল। মশা মানুষের চেয়ে শক্তিশালী এমন কিছু নয় যে আমরা এর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ করতে পারব না, বিজয়ী হতে পারব না, ইনশাআল্লাহ আমরা ডেঙ্গুর বিরুদ্ধেও বিজয়ী হব।’

বর্তমান পরিস্থিতিকে মানবিক সংকট উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, ডেঙ্গু মোকাবিলায় সবাইকে এক হয়ে কাজ করতে হবে। অন্য যেকোনো চ্যালেঞ্জের মতো ডেঙ্গু মোকাবিলায়ও সরকার সফল হবে বলে আশা তার। পাড়া মহল্লায় এই পরিচ্ছন্নতা অভিযান চলবে। পরিস্থিতি বিবেচনায় বিনামূল্যে ডেঙ্গু পরীক্ষা করবে স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ)।

ওবায়দুল কাদের বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে আমরা বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ আত্মঘাতি ভয়ঙ্কর মশা ডেঙ্গুর বিস্তার রোধে এটাকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি। সারা বাংলাদেশের সকল সিটি করপোরেশন জেলা উপজেলা ইউনিয়ন ওয়ার্ড পর্যায়ে তিনদিনের এ কর্মসূচি চলবে। আজকে বৃষ্টিমুখর পরিবেশের ভেতরেও আমাদের দলের সকল নেতারা এখানে সমবেত হয়েছেন।

মশক নিধন কর্মসূচি পালনে আমরা এখানে অংশ নিচ্ছি আমাদের নেতাকর্মীরা ঢাকা সিটির প্রত্যেক ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে এ কর্মসূচিতে অংশ নিচ্ছে। এ কর্মসূচির মূল প্রতিপাদ্য হচ্ছে সচেতনতামূলক কর্মসূচি। আপনারা আপনাদের বাসস্থান, আশপাশের জায়গা পরিষ্কার করুন। যোগ করেন ওবায়দুল কাদের।

কাদের বলেন, আমরা চিকিৎসকদের আহ্বান জানাচ্ছি, এটার জন্য নাম মাত্র ১শ টাকা নিয়ে আপনারা চিকিৎসা করবেন। সব মানুষের পক্ষে ৫০০ টাকা ১০০০ টাকা দিয়ে এ রোগের জন্য রক্ত পরীক্ষা করা সম্ভব নয়। তাই আমি ডাক্তারদের আহবান জানাবো মানবতার স্বার্থে নামমাত্র পয়সায় কিংবা বিনা পয়সায় চিকিৎসা সেবা দিন।

সারা বাংলাদেশের বিএমএ ও স্বাচিপকে রক্ত পরীক্ষার বিষয়টি বিনা পয়সায় করার অনুরোধ জানানো হয়েছে বলেও জানান ওবায়দুল কাদের।

এক প্রশ্নের জবাবে সাংবাদিকদের উদ্দশে তিনি বলেন, এ কর্মকাণ্ড নিয়ে প্রশ্ন না করে আসুন আমরা একযোগে কাজ করি। এটা একশন প্রোগ্রাম, একটি কঠিন চ্যালেঞ্জ এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় সকলেরই দায়িত্ব আছে। আসুন, আমরা একযোগে কাজ করি।

কর্মসূচি উদ্বোধনের সময় উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলির সদস্য মতিয়া চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমান, জাহাঙ্গীর কবির নানক, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, বাহাউদ্দিন নাসিম, আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, এনামুল হক শামীম, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক আব্দুস সবুর, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দি, তথ্য গবেষণা সম্পাদক আফজাল হোসেন, বন ও পরিবেশ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, উপ-দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মারুফা আক্তার পপি, আনোয়ার হোসেনসহ ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণের নেতাসহ কাউন্সিলরা।

Print Friendly, PDF & Email

মতামত