রবিবার, ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং

‘শুধু বিজ্ঞান নয়, সব বিভাগের শিক্ষার্থীই নার্সিং পড়তে পারবে’

নিউজগার্ডেনবিডিডটকম: 

নিউজগার্ডেনবিডডটকম:

নার্সিং পেশাকে মহান সেবা অভিহিত করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। একইসঙ্গে সব বিভাগের শিক্ষার্থী যেন নার্সিং পড়তে পারেন, সে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, কেবল বিজ্ঞানের শিক্ষার্থীরা নয়, সব বিভাগের শিক্ষার্থীরাই যেন নার্সিং পড়তে পারে, সেই ব্যবস্থা নিতে হবে। এ বিষয়ে কোনো কোন আইন বা নীতিমালা শিথিল করার প্রয়োজন হলে সেটাও আমরা করে দেবো।

মঙ্গলবার (১৬ এপ্রিল) দুপুরে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা সপ্তাহ ও জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী ২০১৭-১৮ অর্থবছরে সংগৃহীত সরকারি অ্যাম্বুলেন্স ও জিপগাড়ির চাবি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তাদের হাতে তুলে দেন। ‘স্বাস্থ্য সেবার অধিকার শেখ হাসিনার অঙ্গীকার’ স্লোগানে এবার ১৬ থেকে ২০ এপ্রিল পর্যন্ত স্বাস্থ্যসেবা সপ্তাহ পালিত হবে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী বলেন, একটা সময় পর্যন্ত পেশা হিসেবে নার্সিং ছিল নিম্নস্তরের। আমি সেটাতে উচ্চ পর্যায়ে তুলে দিয়েছি। আগে নার্সিংয়ে কেবল ডিপ্লোমা কোর্স ছিল। আমি সেটাকে গ্র্যাজুয়েশন পর্যন্ত উন্নীত করেছি। পরে নার্সিংয়ে মাস্টার্স ও পিএইচডি পড়ার সুযোগও করে দেই।

এ বিষয়ে পড়ালেখা করার ক্ষেত্রে এখনকার সমস্যা তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, নার্সিং পড়তে হলে বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী হতে হয়। আমি এরই মধ্যে নির্দেশ দিয়েছি, এ বিষয়ে কোনো বাধ্যবাধকতা থাকা উচিত না। এমন ব্যবস্থা করা প্রয়োজন যেন যেকোনো বিভাগের শিক্ষার্থীরাই নার্সিং পড়তে পারে। কিছু নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। কিছু পদক্ষেপও নেওয়া হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, আমাদের শিক্ষা ব্যবস্থায় বোধহয় কিছু সমস্যা আছে। আমি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলেছি, স্বাস্থ্য সচিবকেও বলেছি, এ বিষয়ে কী কী করতে হবে সেটার ব্যবস্থা নিয়ে আসতে। এ ব্যাপারে যদি কোনো আইন বা নীতিমালা বা অন্য কিছু শিথিল করে করতে হয়, সেটা আমরা করে দেবো। কিন্তু এই শিক্ষাটাকে আমি গুরুত্ব দিতে চাই। কারণ নার্সিং একটা মহান সেবা বলে মনে করি।

নার্সিংয়ে বিশেষায়িত শিক্ষার গুরুত্ব তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, আমাদের আরও বিশেষায়িত নার্স গড়ে তুলতে হবে। যারা জেনারেল বিষয় পড়ে আসার, আসবে। কিন্তু যখন পোস্ট অপারেটিভ অর্থাৎ সার্জারির পর বিশেষায়িত সেবার প্রয়োজন হবে, তার জন্য আলাদা নার্স লাগবে। এক্ষেত্রে নার্সদের বিশেষায়িত প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করতে হবে। আমরা বিদেশে পাঠিয়ে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করেছি। কিন্তু আমরা চাই, আমাদের দেশেও যেন সেই প্রশিক্ষণ দেওয়া যায়। এ বিষয়েও আমি ব্যবস্থা নিতে বলেছি।

Print Friendly, PDF & Email

মতামত